বাড়িতে মচমচে জিলাপি বানানোর সহজ রেসিপি জেনে নিন

আজ আমরা বাড়িতে মচমচে জিলাপি বানানোর একদম সহজ রেসিপি নিয়ে আলোচনা করবো! জিলাপি পছন্দ করেন না এমন বাঙালি খুজে পাওয় দায়! জিলাপি কিভাবে বানানো হয় এটা আমরা সবাই জানি, কারণ বেশির ভাগ জিলাপি বিক্রি করার দোকানেই জিলাপি বানিয়ে বানিয়ে বিক্রি করা হয়! তবুও অনেকেই জানেনা যে জিলাপি বানাতে কি কি লাগে! আবার অনেকের কাছেই তো জিলাপি বানানোর কাজ অনেক জটিল মনে হয়! তাহলে, দেখে নেয়া যাক, মচমচে জিলাপি বানানোর সহজ নিয়ম।

বাড়িতে মচমচে জিলাপি বানানোর রেসিপি:

প্রথমে আমরা নিচের লিস্ট থেকে জিলাপি বানানোর সমস্ত উপকরনের নাম ও পরিমান জেনে নিব:

  1. ময়দা ১ কাপ নিতে হবে
  2. চিনি ১ কাপ নিতে হবে
  3. গোলাপজল ১ টেবিল চামচ নিতে হবে
  4. দুধ ১ চা চামচ
  5. লেমন ইয়োলো রং – সামান্য
  6. সয়াবিন তেল ১ কাপ নিতে হবে

ব্রি:দ্র: এখানে বাড়িতে অল্প জিলাপি বানানোর জন্য অল্প পরিমান উপাদান নেয়া হয়েছে! বেশি পরিমানে জিলাপি বানানোর প্রয়োজন হলে উপাদান রেসিপি অনুপাতে বাড়াতে হবে।

আরো পড়ুন-
সহজে কেক পিঠা বিস্কুট বানানোর রেসিপি
১৩ রকমের পুডিং রেসিপি
বাড়িতে জন্মদিনের কেক বানানোর রেসিপি
রান্না শিক্ষার pdf বই

জিলাপি বানানোর নিয়ম:

প্রথমে ময়দা আধা কাপ পানিতে ঘন করে গুলে নিয়ে ঢেকে রাখতে হবে। শীতের দিন হলে ২ দিন ঢেকে রাখতে হবে; আর গরমের দিন হলে দেড় দিন পর্যন্ত ঢেকে রাখতে হবে! জিলাপি বানানোর আগে; চিনির সাথে হাফ কাপ পানি ও ১ চা চামচ দুধ দিয়ে জ্বাল দিতে হবে! দুধ ও চিনির মিশ্রণ ফুটে ওঠার পরে ময়লা জমলে তা ফেলে দিতে হবে! এখন, এতে গোলাপজল মিশিয়ে ঢেকে রাখতে হবে। এটা হলো, জিলাপি ডুবিয়ে রাখার জন্য সিরা।

জিলাপি বানানোর জন্য গুলে রাখা ময়দার উপরে বুদবুদ উঠলে, ময়দা দিয়ে জিলাপি বানানোর উপযোগী হবে! গুলে রাখা ময়দার উপরে পানি জমতে দেখা গেলে, তা ফেলে দিতে হবে; এবং ময়দা ভালো করে ফেটিয়ে নিতে হবে।

এখন, ইয়োলো রং মিশিয়ে আরো ফেটতে হবে! ফেটানো হলে জিলাপি বানানোর পালা। এজন্য রোমালের মতো মোটো চার কোণা মোটা কাপড় নিয়ে; তার মাঝখানে ছোট ছিদ্র করতে হবে! জিলাপি বানানোর আগে অবশ্যই কাপড়টি ভালো করে ধুয়ে পরিষ্কার করে, পানি ঝড়িয়ে বা নিংড়ে নিতে হবে।

এবার জিলাপি বানানোর কাজ, এজন্য ১ কাপ সয়াবিন তেল, লোহার কড়াইয়ে দিয়ে গরম করতে হবে। এরপরে; চারকোণা কাপরের মধ্যে ময়দার গোলা নিয়ে; গরম তেলের উপর জিলাপি ঘুরিয়ে ঘুরিয়ে ছাড়তে হবে! এজন্য, একবার ছোট গোল করে ঘুরিয়ে নিয়ে, তার চারপাশ জুড়ে লাগিয়ে লাগিয়ে অরো একবার ঘুরাতে হবে। এরপরে, জিলাপির মাঝখান থেকে হাত সামনের দিকে নিয়ে, আরো একটা নতুন জিলাপি বানানো শুরু করতে হবে! এভাবে কড়াইতে যত সংখ্যা জিলাপি ছাড়া যায়, সেই পরিমান জিলাপি ছাড়তে হবে।

ছিলাপি ছাড়ার পরে ভাজার পালা। জিলাপি ভাজার চুলার আঁচ কম বা মাঝারি রেখে জিলাপি মচমচে করে ভাজতে হবে! কারণ, জিলাপি ভাজার সময় মচমচে না করলে, পরে আর মচমচে হয় না। বাদামী রং হলে, জিলাপি উঠিয়ে সিরায় রাখতে হবে। সিরায় জিলাপি ডুবিয়ে ডুবিয়ে দিতে হবে! সিরার মধ্যে জিলাপি ৮ থেকে ১০ মিনিট সম্পূর্ণ ডুবিয়ে রেখে তারপরে তুলতে হবে! এভাবেই বাড়িতে মচমচে জিলাপি বানানো যাবে।

Leave a Comment